**রংপুর নাগরিক সমাজ(RNS) সংগঠনের নিউজ পোর্টাল rnsnews24.com এ স্বাগতম।  *** প্রতিনিধি নিয়োগ*** রংপুর বিভাগের সকল জেলা ও রংপুর জেলার সকল উপজেলায় প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগ- 01722-882770 ।  *** সবার আগে নির্ভুল সংবাদ পেতে নিয়মিত ভিজিট করুন।
শিরোনাম :
৭১এর ‘চেতনায় ঐক্যবদ্ধ শক্তির বিকল্প নেই!………….. সাখাওয়াত হোসেন শফিক পীরগঞ্জের ঘটনায় দিনাজপুর থেকে ২ জন আটক রংপুরে ঈদ-এ মিলাদুন্নবী পালিত পীরগঞ্জের ঘটনা পূর্ব পরিকল্পিত রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ………ড. হাছান মাহমুদ পীরগঞ্জের ঘটনা পূর্ব পরিকল্পিত ………স্পীকার রংপুরে সাবেক যুবলীগ নেতা সাজিদ পারভেজ যাদু’র স্মরণে দোয়া মাহফিল নৌকা মার্কার আবেদন পত্রই নিলেন না কুর্শা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ রংপুরের উন্নয়নে স্থানীয় পত্রিকার গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রয়েছে……….. মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি রংপুরে হতদরিদ্র ক্লাবফুট শিশুর পরিবারদের খাদ্য সহায়তা প্রদান রংপুরে সাংবাদিক সুরক্ষা আইন প্রণয়নের দাবিতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্বারকলিপি
নিরাপত্তা চেয়ে গাইবান্ধায় বন্ধুর বাড়িতে আশ্রয় নেন আদনান

নিরাপত্তা চেয়ে গাইবান্ধায় বন্ধুর বাড়িতে আশ্রয় নেন আদনান

স্টাফ রিপোর্টারঃ পারিবারিক কারণে গাইবান্ধার বন্ধুর বাড়িতে আত্মগোপনে ছিলেন আদনান ও সঙ্গীরা। আজ (১৯জুন) শনিবার সকালে গাইবান্ধা সদরের ত্রিমোহিনীতে তার বন্ধু সিয়ামের বাড়িতে সাংবাদিকদের সাথে কথা হয় সিয়ামের মায়ের সঙ্গে। সিয়ামের মা নিশাত নাহার বলেন, ত্বহা সিয়ামের ঘনিষ্ঠ বন্ধু। ত্ব-হা তার ছেলের মতোই প্রায়ই সে তাদের বাড়িতে আসা-যাওয়া করত। গত শুক্রবার (১১ জুন) তিন বন্ধুসহ গাড়ি নিয়ে তাদের বাড়িতে আশ্রয় চান আবু ত্ব-হা মুহম্মদ আদনান।

আদনান তার বন্ধু সিয়ামের মাকে বলেন, কারা যেন তাদের ফলো করছে, তিনি খুব ভীতসন্ত্রস্ত। তার নিরাপত্তার জন্য আশ্রয় প্রয়োজন। কয়েক দিন তিনি সেখানে থাকতে চান। কিন্তু বিষয়টি কাউকে বলা যাবে না। আবু ত্ব-হা মুহম্মদ আদনানের কথা মতো সিয়ামের মা নিশাত নাহার বিষয়টি ত্ব-হার পরিবার কিংবা রংপুরে অবস্থানরত সিয়ামকেও জানাননি। এরপর গত শুক্রবার (১৮ জুন) তাদের বাড়ি থেকে সিয়াম তার তিন বন্ধুসহ গাড়ি নিয়ে চলে যান।আবু ত্ব-হা মুহম্মদ আদনান নিখোঁজের বিষয়টি যখন দেশজুড়ে আলোচিত, তখন কেন আদনানের পরিবার, প্রশাসন বা সিয়ামকে জানাননি এমন প্রশ্নে নিশাত নাহার বলেন, ত্ব-হা তাকে বারবার অনুরোধ করেন তার নিরাপত্তার জন্য বিষয়টি কাউকে না জানাতে। তার বাড়িতে সপ্তাহব্যাপী অবস্থানকালে ত্ব-হা কিংবা তার সঙ্গীদের কেউই বাড়ি থেকে বের হননি। তারা বাড়ির ভেতরে খাবার খেতেন, নামাজ আদায় করতেন আর ফোনে কথা বলতেন।সিয়ামের বাড়ির পাশে বসবাস করেন সিয়ামের চাচা সোহেল নেওয়াজ খান। তিনি জানান, সম্প্রতি তাদের গোটা পরিবার করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় তার বাড়ি থেকে বের হতেন না। যার কারনে ত্ব-হা ও তার বন্ধুদের ওই বাড়িতে অবস্থান করার বিষয়টি তাদের নজড়ে আসেনি। তবে শুক্রবার (১৮ জুন) তারা জানতে পারেন তার পাশের বাড়িতে ভাতিজা সিয়ামের ঘরে আবু ত্ব-হা মুহম্মদ আদনান সঙ্গীদের নিয়ে বেশ কয়েক দিন ছিলেন।এলাকায় কথা বলে জানা যায়, এর আগেও বেশ কয়েকবার ত্রিমোহিনীতে সিয়ামের সঙ্গে সস্ত্রীক এসেছিলেন আবু ত্ব-হা মুহম্মদ আদনান। তিনি আশপাশের মসজিদে নামাজ আদায় করতেন, খুতবা পড়তেন।একাত্তরে গাইবান্ধা গ্রন্থে উল্লেখ আছে মুক্তিযুদ্ধে বিরোধিতাকারী ফজলুল হক ব্যাটালিয়নের সদস্য ছিলেন জহুরুল আনোয়ার দুলাল, জহুরুল কাইয়ুম ও আখি খান। তাদেরই উত্তরাধিকার আবু ত্ব-হা মুহম্মদ আদনানের বন্ধু সিয়াম।ত্ব-হার বন্ধু সিয়ামের বাবা শরীফ নেওয়াজ খান মারা গেছেন। তার বোনের বিয়ে হয়েছে। গাইবান্ধা সদরের বোয়ালী ইউনিয়নের ত্রিমোহিনীর বাড়িটিতে সিয়ামের মা নিশাত নাহার একাই বসবাস করেন। মাঝেমধ্যে ছেলেমেয়েরা বেড়াতে আসেন। বাড়িটির চারপাশে গাছ-গাছালি দিয়ে ঘেরা। নির্জন বাড়িটিতে মানুষের চলাচল তেমন নেই।
গত ১০ জুন বৃহস্পতিবার থেকে ৩ বন্ধুসহ নিখোঁজের টানা ৮ দিন পর তরুণ ইসলামি বক্তা আবু ত্ব-হা মুহম্মদ আদনান গতকাল (১৮জুন) শুক্রবার রংপুরের আদালতে জবানবন্দি দেন।

সংবাদটি সবাইকে জানাতে আপনার স্যোস্যাল অ্যাকাউন্ট দিয়ে শেয়ার করুন




©২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। আর এন এস নিউজ ২৪.কম।